বগুড়া শেরপুরে মির্জাপুর ইউনিয়নের ভূমিদস্যু আলাউদ্দিন সরকারের বিরুদ্ধে সাংবাদিক সম্মেলন ।

প্রকাশিত: 6:51 PM, June 7, 2020

 

সনাতন সরকার বগুড়া প্রতিনিধি
বগুড়া শেরপুর উপজেলার মির্জাপুর ইউনিয়নের মদনপুর মৌজার ১৭৯,১৮০ দাগের সম্পত্তি অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিস্ট্রট আদালত মোকদ্দমা নং ৪৯৭ পি/২০১৯( শেরঃ) ফৌঃ কাঃ বিঃ আইনে ১৪৪/১৪৫ ধারা জারী করলেও ভূমিদস্যু আলাউদ্দিন সরকার গংরা আদালতের আইন অমান্য করে অসহায় বিধবার সম্পত্তি দখলের চেষ্টা করছে।
ভূমিদস‍্যু আলাউদ্দিন সরকার, মির্জাপুর ইউনিয়নের কৃষ্ণপুর গ্রামের মৃত কালাম সরকারের ছেলে।
মামলার বাদী কৃষ্ণপুর এলাকার মরহুম জালাল উদ্দিন সরকারের স্ত্রী মোছাঃ জীবন নাহার জিলাল বিভিন্ন মহলের দ্বারে দ্বারে ধরনা দিয়ে অবশেষে অদ‍্য ৭ জুন ২০২০ বেলা ১১ঘটিকায় শেরপুর মুন ইরাফি গার্ডেন সিটিতে উত্তরবঙ্গ সাংবাদিক সংস্থার কার্যলয়ে উপস্থিত হয়ে সাংবাদিক সম্মেলনে লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন, এসময় তার সঙ্গে একমাত্র ছেলে জাওয়াদ জীম উপস্থিত ছিলেন । লিখিত বক্তব্যে তিনি বলেন, আমি একজন সহজ সরল বিধবা ও অসহায় পর্দাশীল নারী, ২০০৫ সালের ১৫ মে আমার স্বামী জালাল উদ্দিন সরকার এক মর্মান্তিক সড়ক দ‍ূর্ঘটনায় মৃত্যু বরণ করেন। তারপর থেকেই বহুকষ্টে এক ছেলে ও এক মেয়ে নিয়ে অতি সাধারণ জীবন যাপন করছি। এমতাবস্থায় বগুড়া জেলার শেরপুর থানাধীন মদনপুর মৌজার এম আর আর ৬৬,৬৭ নং খতিয়ান ভুক্ত ১৭৪ দাগের সর্বমোট ৩৩ শতক সম্পত্তির মধ্যে ইতিপূর্বে ০৩ শতক জমি সরকার অধিগ্রহণ করে। পরবর্তীতে ভূমি অধিগ্রহণ শাখা স্মারক নং এল এ, মামলা নং ০২/ সাসেক/২০১৮ মূলে বিগত ৩১/১০/২০১৯ তারিখে জারীর নম্বর ১৪২ এর মাধ্যমে নোটিশ জারী পূর্বক ১৭৪ দাগের ৩০ শতক সম্পত্তি সহ আমি এবং আমার প্রতিপক্ষ ভুমিদ্যু আলাউদ্দিন সরকার গং তাহার পুত্র, কন্যা সহ অন্যান্য সকলের নিকট হইতে হুকুম দখল করিবার ও ক্ষতিপূরনের টাকা গ্রহণের নিমিত্তে, নির্ধারিত ফরমে অঙ্গীকারনামা সহ বিগত ০৭/১১/২০১৯ তারিখে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে ভূমি অধিগ্রহণ শাখার হাজির হওয়ার পর থেকেই কৃষ্ণপুর গ্রামের ভূমিদস্যু আলাউদ্দিন সরকার(৫৫) পিতা মৃত কালাম সরকার, মোঃ রাশেদুল ইসলাম(২৮) পিতা আলাউদ্দিন সরকার, আরিফুল ইসলাম(২৫)পিতা আলাউদ্দিন সরকার এবং রফিকুল ইসলাম(৩৩) পিতা মৃত চান সরকার সহ ২০/২৫ জনের একটি দল সরকারি অধিগ্রহণ করা ১৭৪ দাগের সম্পত্তির সংলগ্ন আমাদের ক্রয়কৃত ১৭৯,১৮০ দাগের সম্পত্তির উপর লাল চিহ্নিত হাত নকশা অংকন করে দখল করিবার উদ্দেশ্যে অংকন করে জোর পূর্বক অবৈধভাবে দখল করার জন‍্য এবং আমাদের অনুপস্থিতে ভীত খুড়িয়া কলম তলার আয়োজন করে। আমরা লোকমুখে সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে বাধা প্রয়োগ করলে ভূমিদস্যুরা বাধা অপেক্ষা করে আমাদের ওপর চড়াও হয় এবং ফিট খননের কোদাল শাবল দিয়ে আমাদের মারতে আসে,শুধু তাই নয় আমাদের প্রাণ নাশেরও হুমকি দেয়। এমতাবস্থায় আমি আমার সন্তানদের নিয়ে চরম উৎকণ্ঠা এবং নিরাপত্তাহীনতায় দিনাতিপাত করছি। তাই এলাকার সচেতন মহল সহ প্রশাসনের সহযোগিতা কামনা। তাদের মাধ্যমে সুষ্ঠু ও শান্তিপূর্ণ নিষ্পত্তি সহ আমার সন্তানদের চলার পথ নির্বিঘ্ন হবে বলে আমি আশাবাদী।